Skip to main content
Asked a question last year

ফ্রিলান্সিং কারো ক্যারিয়ার হলে কখনো কি কি ঝুকির মধ্য পরতে হতে পারে? যেমন ধরুন ২০ বছর পর সবাই এসব কাজ পারে ফলে যার যার কাজ সে নিজেই করে এমন ধরনের?

কোথায় আপনি?

এই MSB Ask কমিউনিটিতে আপনি যেকোনো প্রশ্ন করতে পারবেন, উত্তর দিতে পারবেন এবং নিজের অভিজ্ঞতা শেয়ার করতে পারবেন। তাই নতুন হলে সাইনআপ করুন, আর আগেই থেকেই অ্যাকাউন্ট থাকলে লগিন করুন।  

Masuk Sarker Batista
Founder & CEO of MSB Academy

তখন চাহিদা আরো বাড়বে ফ্রিলান্সিং এর। কারণ তখন মানুষ বাড়বে, কাজের পরিধি বাড়বে। অফিস ভাড়া নিয়ে জব দেয়ার মানুসিকটা পরিবর্তন হবে। ইন্টারনেটের যুগে অনেকে স্বাধীন জীবন যাপন করার মতো জবকেই ক্যারিয়ার হিসাবে বেছে নিবে। তখন ফ্রীলেন্সিং দেশে বিদেশে হবে একটা সম্মানজনক পেশা :) বরং সমস্যা হবে যারা চাকরী করা ছাড়া অন্য কিছুতে এক্সপার্ট না তাদের। 

যে গতিতে ফ্রিলান্সিং জনপ্রিয়ও হয়ে আসছে। তাতে মনে হয় নেক্সট ২০ বছর আরও জনপ্রিয় হবে। 

বাংলাদেশে এখন ১ মিলিওন ফ্রিলান্সিং আছে। এবং তাদের থেকে দেশে প্রতি বছর ২ বিলিয়ন ডলার দেশে আসে। 

সালমান ফ রাহমান জানাই  

দেশে ফ্রিলান্সিং আরও সুবিধা দিতে সকম ব্যাংকে একসাথে কাজ করতে বলা হয়সে। 

এসবের অর্থ সরকার এই মার্কেট এর ভবিষ্যৎ বুজে গেসে। তাইলে গেলে খারাপ হবে না। 

আমার মতে ফ্রিলান্সার দের চাহিদা আরো বাড়বে। সুতরাং ভবিষ্যতে এই পথে তেমন কোনো ঝুকি নেই বলে আমি মনে করি। কারণটাও বলি-

আমার মনে হয় মানুষ ধিরে ধিরে বাসায় বসে কাজ করা শুরু করবে। আপনি যদি এই করোনা পরিস্থিতি বিবেচনা করেন তাহলে বুঝতে পারবেন এমন অনেক কাজ আছে যা বাসায় বসে থেকে করা যায়। অফিস এর প্রয়োজন হয় না। সবাই যদি এটা উপলব্ধি করে তাহলে ভবিষ্যতে সব জব অফিশহীন হয়ে যাবে।

তখন মানুষ ফ্রিলান্সার মূল্য বুঝতে পারবে। এছাড়াও ফ্রিলান্সার দের চাহিদাও তখন বাড়বে কাজও বাড়বে। অনেকটা গার্মেন্টস শিল্প এর মতো।

মাসুক ভাই এবং অর্ণব হোসেন এই বিষয়ে যুক্তিযুক্ত কথা বলেছেন।

নাহ। সেটা এখনো সম্ভব না। কারণ এগুলার অনেক ধরণের কাজ রয়েছে। সবাই তো সব কিছু শিখবে না। 

দিন যত যাবে কাজের চাহিদা ততই বাড়বে

Wasimul Haque Anis
নতুন তথ্যর সন্ধানে,

আমি মনে করি আপনি যদি নির্দিষ্ট কোনো বিষয়ের উপর অনেক বেশি পারদর্শী হোন তাহলে  আপনাকে কখনোই আর্থিক দিক দিয়ে ঝুকির মদ্ধ্য পড়তে হবে না।